নারী ধর্ষক ও নির্যাতন কারীদের বিরুদ্ধে তাৎক্ষনিক ব্যাবস্থা নিতে হবে: ডিসি খাইরুল আলম -সময় প্রবাহ নিউজ

আব্দুল্লাহ আল হাসিব, নিউজ ডেস্ক: বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশের উপ-পুলিশ কমিশনার উত্তর মোঃ খাইরুল আলম বলেছেন,নারী ধর্ষক ও নির্যাতন কারীদের বিরুদ্ধে তাৎক্ষনিক ব্যাবস্থা নিতে হবে।এর ফলে সাধারন জনগন খুব তাড়াতাড়ি পুলিশি সেবা পাবে এবং অপরাধীরা অপরাধ প্রবনতা থেকে দূরে থাকবে।কোন সংবাদ আসার সাথে সাথেই ঘটনা স্থলে যেতে হবে।ধর্ষন একটি জঘন্যতম অপরাধ।ধর্ষনের বিরুদ্ধে সামাজিক আন্দোলন গড়ে তুলতে হবে।সবাই সচেতন হয়ে ধর্ষকদের সামাজিক ভাবে বয়কট করতে হবে।

শুক্রবার(১৬ অক্টোবর) বিকালে বিএমপি উত্তর বিভাগের উদ্যোগে বরিশাল এয়ারপোর্ট থানা ও কাউনিয়া থানায় বিট অফিসারদের সাথে পৃথক পৃথক ভাবে অনুষ্ঠিত নারী ধর্ষন ও নির্যাতন বিরোধী বিট পুলিশিং সমাবেশের প্রস্তুুতি সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ সব কথা বলেন।

এ সময় তিনি আরও বলেছেন,পুলিশে কর্মরত নারী সহকর্মীদের সাথে ভাল আচরন করতে হবে।নারীদের ক্ষমতায়নে কাজ করতে হবে।নারীরা আজ কর্মক্ষেত্র সহ সবক্ষেত্রে এগিয়ে আছে।মহামারী করোনাকালেও নারীরা পুরুষদের সাথে তাল মিলিয়ে কাজ করে গেছেন। নারী পুরুষ সবাইকে এক হয়ে কাজ করতে হবে।আমাদের কাছে নারী পুরুষ সবাই নিরাপদ।খারাপ লোককে আইনের মাধ্যমে ভাল করার দায়িত্ব রাষ্ট্রের।সমাজের খারাপ মানুষ গুলিকে ভাল করার জন্যই মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ধর্ষকদের সর্বোচ্চ সাজা মৃত্যুদন্ড নিশ্চিত করতে আইন সংশোধন করেছেন। আমরা বিশ্বকে জানান দিতে চাই যে আমরা নারীবান্ধব,নারীদের প্রতি সহনশীল।নারীদের সুরক্ষা প্রদানে বাংলাদেশ পুলিশ কাজ করে যাচ্ছে।

উপ-পুলিশ কমিশনার উত্তর খাইরুল আলম বলেন,নারীদের প্রতি সহিংসতা রোধে আমরা জিরো টলারেন্স,পুলিশ হেড কোয়ার্টার্সের মাধ্যমে সারাদেশের নারী নির্যাতন বিরোধী সেলগুলো মনিটরিং করা হচ্ছে।প্রত্যন্ত অঞ্চলের মানুষকে পুলিশের সেবার ধরন সম্পর্কে বিস্তারিত জানাতে হবে।জনগনের সেবার জন্য বিট পুলিশিং,কমিউনিটি পুলিশিং,ওপেন হাউজ ডে,নারীনির্যাতন সেল,ভিকটিম সাপোর্ট সেন্টার,নারীশিশু ডেস্ক,৯৯৯ সহ সকল প্রকার সেবামূলক কর্মসূচী সম্পর্কে জনগনকে জানিয়ে দিতে হবে।

তিনি বলেন,আগামীকাল শনিবার ১৭ অক্টোবর সকাল ১০ টায় আইজিপি স্যারের নের্তৃত্বে এক যোগে সারাদেশের ৬৯১২ টি বিট এলাকায় নারী ধর্ষন ও নির্যাতন বিরোধী বিট পুলিশিং সমাবেশ অনুষ্ঠিত হবে।উক্ত সমাবেশ সফল করতে সবাইকে একযোগে কাজ করতে হবে।
এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন,এয়ারপোর্ট থানার সহকারী কমিশনার নাসরিন জাহান,কাউনিয়া থানার
সহকারী কমিশনার মাসুদ রানা,কাউনিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ আজিমুল করিম,এয়ারপোর্ট থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) শাহ মোঃ ফয়সাল,কাউনিয়া থানার পুলিশ পরিদর্শক(অপারেশন) মোঃ লোকমান সহ এয়ারপোর্ট ও কাউনিয়া থানার সকল বিটঅফিসার বৃন্দ।

Share
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *